বাংলাদেশ-শ্রীলংকা প্রথম ওয়ানডে আজ

0
19
বাংলাদেশ-শ্রীলংকা প্রথম ওয়ানডে আজ

কাগজ ডেস্ক: শ্রীলংকা ক্রিকেটপাগল দেশ। এতে কোনো সন্দেহ নেই। সেখানে গ্যালারিভরা দর্শক দেখা যায় সবসময়। লংকান ইতিহাসের অন্যতম সেরা পেসার লাসিথ মালিঙ্গার বিদায়ী ম্যাচকে ঘিরে আলাদা উন্মাদনা তৈরি হয়েছে কলম্বোয়।
ম্যাচের দু’দিন আগেই সব টিকিটও বিক্রি হয়ে গেছে। বোঝাই যাচ্ছে আজ প্রেমাদাসা স্টেডিয়াম ক্ষণে ক্ষণে কেঁপে উঠবে ৪০ হাজার দর্শকের মালিঙ্গা-ধ্বনিতে।
একদিবস ক্রিকেটে অধিনায়ক হিসেবে অভিষেক হবে তামিম ইকবালের। মাশরাফি মুর্তজা, সাকিব আল হাসান ছাড়াই নতুন এক চ্যালেঞ্জ বাংলাদেশের সামনে।
বিশ্বকাপের হতাশা ভুলে নতুন শুরুর প্রত্যাশা। তিন ম্যাচের দিবারাত্রি ওয়ানডে সিরিজের প্রথমটি বাংলাদেশ সময় বেলা ৩টায় শুরু হবে।
মালিঙ্গা নিয়ে মেতে আছে শ্রীলংকা। আর সিরিজে বাংলাদেশ পাচ্ছে না জাতীয় দলের নিয়মিত চার সদস্যকে।
মাশরাফি ও সাকিবের সঙ্গে বাংলাদেশ দলে নেই লিটন দাস ও মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন। চ্যালেঞ্জ টের পাচ্ছেন ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক তামিম। তাসকিন আহমেদ, ফরহাদ রেজা, এনামুল হক বিজয়দের নতুন করে প্রমাণের সুযোগ হতে পারে এই সিরিজ।
প্রস্তুতি ম্যাচে শ্রীলংকা বোর্ড প্রেসিডেন্ট একাদশকে হারিয়েছে বাংলাদেশ। আত্মবিশ্বাসও সেখান থেকে পেয়েছেন তামিমরা। রুবেল ও মোস্তাফিজ ভালো বোলিং করেছেন। সৌম্য সরকারের বোলিং ব্যাটিংয়ের চেয়েও ভালো হচ্ছে। ষষ্ঠ বোলার হিসেবে তামিমের অপশন হতে পারেন সৌম্য। সাকিব না থাকায় তিন নম্বরে ব্যাট করবেন মোহাম্মদ মিঠুন।
প্রস্তুতি ম্যাচে ৯১ রান করে তিনি প্রমাণ করেছেন তিন নম্বর জায়গায় খেলার ক্ষমতা তার আছে। এক সাকিব না থাকলে তার পরিবর্তে দু’জন খেলোয়াড়কে দলে নিতে হয়। বাঁহাতি স্পিনার হিসেবে সাকিবের বিকল্প ভাবা হয়েছে পেসার তাইজুল ইসলামকে। পেস বোলিং আক্রমণে মোস্তাফিজুর রহমানের সঙ্গী হতে পারেন তাসকিন ও রুবেল। স্পিনে ডানহাতি অফ-স্পিনার মেহেদী হাসান মিরাজের জুটি তাইজুল।
শ্রীলংকার কন্ডিশনে বাংলাদেশের অতীত পারফরম্যান্স খারাপ নয়। ২০১৬-১৭ মৌসুমে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে ১-১ এ ড্র হয়েছিল।
এবার আরও সিরিজ জিততে চায় বাংলাদেশ। দু’দলের লড়াইয়ে বর্তমান ক্রিকেটারদের মধ্যে ব্যাটিংয়ে সবচেয়ে বেশি রান তামিমের। ২১ ম্যাচে ৬৪৫ রান করেছেন তিনি।
বাংলাদেশের বিপক্ষে ধারাবাহিকভাবে ভালো করেছেন মালিঙ্গা। ১৪ ম্যাচে তিনি উইকেট নিয়েছেন ২৪টি। ওয়ানডেতে বাংলাদেশের বিপক্ষে ম্যাচই মালিঙ্গা শেষ ম্যাচ। বিদায়টা নিশ্চয়ই রাঙিয়ে যেতে চাইবেন ভিন্ন ধারার অ্যাকশনের এই বোলার। বিদায়বেলায় যে তাকে সমীহ করে খেলতে হবে এমনটা মনে করছেন না তামিম। তার ১৬ বছরের ক্যারিয়ারের সমাপ্তিকে সম্মান জানাবে বাংলাদেশ। তবে মাঠে নামলে ব্যাটসম্যানরা ভুলে যাবেন যে আজই মালিঙ্গা অধ্যায় শেষ!
কাল তামিম বলেন, ‘একটি বিষয় নিশ্চিত যে, যখন আমরা তার বিপক্ষে খেলব তখন মাথায় রাখব না যে, এটি তার শেষ ম্যাচ। যতটা সম্ভব কঠিনভাবে খেলার চেষ্টা করব।’
বিশ্বকাপের দল থেকে পাঁচ ক্রিকেটার বাদ দিয়েছে শ্রীলংকা। বাংলাদেশের বিপক্ষে এই সিরিজ চন্ডিকা হাথুরুসিংহের লংকান কোচ হিসেবে শেষ সিরিজ হতে পারে। ফের বাংলাদেশের কোচ হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে তার। এই কোচকে নিয়ে বাংলাদেশের আগ্রহ নতুন করে বেড়েছে।
চোটের কারণে শ্রীলংকা সফরে যেতে পারেননি নিয়মিত অধিনায়ক মাশরাফি। বিশ্বকাপ শেষে সাকিব আছেন ছুটিতে। গুরুত্বপূর্ণ এ দুই ক্রিকেটারের অনুপস্থিতিতে শ্রীলংকার কতটুকু সুবিধা হবে?
লংকান অধিনায়ক করুনারত্নে বলেন, ‘বাংলাদেশ কয়েক বছর ধরে সত্যিই ভালো ক্রিকেট খেলছে। বিশ্বকাপেও তারা ভালো করেছে। মাশরাফি, সাকিবের বদলি হিসেবে যারা এসেছে তারাও দলের হয়ে ভালো করেছে।
জেতার জন্য আমরা নিজেদের সেরাটা দিতে চাই।’ লংকান ক্রিকেট বোর্ড মালিঙ্গাকে আরও কিছুদিন পর অবসর নিতে বলেছিল। কিন্তু নতুনদের সুযোগ করে দেয়ার জন্য তিনি সরে যাচ্ছেন। মালিঙ্গার বিদায়ী ম্যাচে তাকে জয় উপহার দিতে চান করুনারত্নে। তিনি বলেন, ‘আমরা শুধু জয় নিয়েই ভাবছি। ম্যাচ জেতাই মূল লক্ষ্য। আমরা জিতেই তাকে বিদায় জানাতে পারি।’